গোদাগাড়ীতে বন্যার্তদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ


গোদাগাড়ী প্রতিনিধিঃ

রাজশাহীর গোদাগাড়ী উপজেলায় বন্যা কবলিত মানুষদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। ০২ অক্টবর (বুধবার) সকালে উপজেলার চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের চর বয়ারমারী এলাকার বন্যা কবলিত জনসাধারণের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

ত্রাণ বিতরণ অনুষ্ঠান গোদাগাড়ী উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন অফিসার আবু বাশিরের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম, বিশেষ অতিথি মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান সুফিয়া খাতুন মিলি, উপজেলা পরিসংখ্যান অফিসার শরিফুল ইসলাম, উপজেলা আওয়ামীলীগ সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রশিদ, চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাউল্লাহ। অনুষ্ঠানটি পরিচালানা করেন আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের ১নং ওয়ার্ডের সদস্য মাসুদ রানা উজ্জল।

এসময় উপজেলা চেয়ারম্যান জাহাঙ্গীর আলম বলেন, বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের স্থায়ী পুনর্বাসনে কাজ করছে সরকার। যারা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন প্রত্যেককে ঘর নির্মাণ করার জন্য আগামী কাল নদীর গর্ভে বিলিন হওয়া ৭৬ টি পরিবারের মাঝে ২ বান্ডিল করে টিন দেওয়া হবে। বন্যার ক্ষতি পুষিয়ে দিতে সরকার বিভিন্ন কর্মকান্ড হাতে নিয়েছে। তিনি বলেন, স্থানীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব ওমর ফারুক চৌধুরী এবং মননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ নজর রয়েছে গোদাগাড়ীর চর আষাড়িয়াদহ ইউনিয়নের মানুষের প্রতি।

তিনি বন্যায় সবসময় খোজখবর নিচ্ছেন, সাহায্য সহযোগীতা করতে সরকারর মন্ত্রী, এমপি ও দলের শীর্ষ নেতারা ছুটে বেড়াচ্ছেন। গত কাল ডিসি মহোদয়ের সাথে ভিডিও কনফারেন্সে এর মাধ্যমে বন্যার কথা তুলে ধরলে এই ত্রাণ বরাদ্দ করে দেন। তিনি আরও বলেন, বন্যার্ত মানুষদের জন্য পর্যাপ্ত ত্রাণ মজুদ আছে। যতদিন পর্যন্ত কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা হবে না ততদিন সরকার ত্রাণ বিতরণ অব্যাহত রাখবে। ঘর বাড়ী হারা মানুষের জন্য দ্রুত জমি বন্দবস্ত করে আদর্শ গ্রাম তৈরী করার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে।

রাজশাহী জেলা প্রশাসনের তত্ত্বাবধানে অনুষ্ঠানে বন্যার্ত ৫৫ টি পরিবারের মাঝে ৩০ কেজি চাল এবং ৪১ টি পরিবারের মাঝে শুকনা খাবার বিতরণ করা হয়। শুকনা খাবারের মধ্যে ১০ কেজি মিনিকেট চাউল, ২ কেজি চিড়া, ১ কেজি লবণ, ১ প্যাকেট চিনি, ১ প্যাকেট নুডুস, ১ কেজি মসুরের ডাল, ১ লিটার সোয়াবিন তৈল বিতরণ করা হয়।

Print Friendly, PDF & Email

শর্টলিংকঃ