অবসরে কুকুর ছানাকে আদর করি: সায়নী

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ইউএনভি ডেস্ক:

অভিনয় থেকে রাজনীতির মঞ্চ। নতুন পরিচয়ে পরিচিত হয়েছেন ভারতীয় অভিনেত্রী সায়নী ঘোষ। ব্যস্ততা বেড়েছে কয়েক গুণ। এতকিছু সামলে নিজের জন্য সময় পান?হ্যাঁ। তবে সেটা খুবই অল্প। এই অল্প সময়ের মধ্যেই অবসরে মা-বাবা আর তার পোষা দুটি কুকুর ছানাকে সময় দেন সায়নী।

আনন্দবাজার পত্রিকাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন, এত মানুষ আমার জীবনে এসে গিয়েছেন, তাদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে নিজের জন্যই আর সময় নেই। অবসর মিললে মা-বাবার সঙ্গে গল্প করি। তারাও আমাকে আর সে ভাবে পান না। আর দুটো কুকুর ছানা রয়েছে, ওদের আদর করি।

যুব তৃণমূলের রাজ্য সভাপতি পদে অভিষেক হল সায়নীর; এতে বাড়তি চাপ কতটা- সে প্রশ্নে আভিনেত্রী বলেন, এত গুরুত্বপূর্ণ পদ পেয়ে আমার তো আকাশ থেকে পড়ার মতো অবস্থা! এই গুরু দায়িত্ব দেওয়ার জন্য মুখ্যমন্ত্রীর কাছে আমি কৃতজ্ঞ। নিজের প্রতি আমার আস্থা রয়েছে।

তিনি বলেন, অভিনয়েও এসেছিলাম কোনও ব্যাকগ্রাউন্ড ছাড়া। কাজ করতে করতে শিখেছি। এখানেও ধীরে ধীরে শিখে যাব সব কিছু। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বুঝেছেন, আমাকে দিয়ে যুব সংগঠনের কাজ সফল করা সম্ভব। আমাকে দেখে কমবয়সি ছেলেমেয়েরা রাজনীতিতে আসবেন।

সায়নী বলেন, ২০২৪ সালের লোকসভা নির্বাচনকে সামনে রেখে দলের সংগঠন সাজাতে চাইছেন তৃণমূল নেত্রী। সরকার নির্বাচনে যুবসমাজ একটা গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে। আর আমার দায়িত্ব হবে দলের বার্তা রাজ্যের যুবসমাজের কাছে পৌঁছে দেওয়া।

অভিনয় প্রসঙ্গে তিনি বলেন, অভিনয় প্রথম প্রেম আমার। কিন্তু অভিনতা-অভিনেত্রীরা রাজনীতিতে হাওয়া খেতে আসেন, এই ভুল ধারণা ভাঙতে চাই। তাই রাজনীতিটা খুব সিরিয়াসলি করতে চাই। খুব ভাল স্ক্রিপ্ট না পেলে অভিনয় করব না।

 


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
শর্টলিংকঃ