শহীদ বেদিতে জুতা পায়ে বিএনপি নেতারা, সমালোচনার ঝড়

  • 3
    Shares

১ সেপ্টেম্বর পালিত হলো বিএনপি’র ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী। এ উপলক্ষে রাজশাহী মহানগর ও জেলা বিএনপি দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে। মহানগরীর ভুবন মোহন পার্ক শহীদ মিনারে এ কর্মসূচি পালন করা হয়। শহীদ বেদীতে সাদা কাপড় বিছিয়ে তার ওপর মঞ্চ তৈরি করা হয়। কিন্তু বেদীর সিঁড়িতে জুতা পায়ে উঠে সেখানে বসে থাকতে দেখা যায় মহানগর বিএনপির শীর্ষ নেতাদের! যা নিয়ে এরইমধ্যে শুরু হয়েছে সমালোচনার ঝড়।

সূত্র বলছে, যেখানে শহীদ বেদীর সিঁড়িতে ওঠার আগেই সবাই জুতা খুলে ওঠেন। সেখানে বিএনপি নেতাদের এমন কাণ্ডে উপস্থিত সবাই হতবাক। এমন প্রেক্ষাপটে প্রশ্ন উঠেছে, যে দল শহীদদের প্রতি সম্মান দেখাতে পারে না তারা জনগণের প্রতিনিধিত্ব করবে কিভাবে?

এ প্রসঙ্গে কথা হয় ভুবন মোহন পার্ক শহীদ মিনার সংলগ্ন এক ব্যবসায়ীর সঙ্গে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে তিনি বলেন, কর্মসূচির শুরুতেই বিএনপি নেতাদের জুতা পরে বেদীতে ওঠা দেখে অনেকেই অবাক হয়েছিলো। এ নিয়ে অনেকেই কথাও বলছিলো। কিন্তু তা নিয়ে নেতাদের কোনো ভ্রুক্ষেপই ছিলো না। বিষয়টি বাঙালি হিসেবে আমাদের লজ্জার। এখন পর্যন্ত একটি রাজনৈতিক দল মানবিকতাই শেখেনি। তারা জনগণকে আসলে কী দেবে?

রাজশাহী মহানগর ও জেলা বিএনপির আয়োজনে প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর অনুষ্ঠানে শহীদ বেদিতে জুতা নিয়ে ওঠার ব্যাপারে মহানগর বিএনপির কোনো নেতার বক্তব্য পাওয়া যায়নি। প্রতিটি নেতাই বিষয়টিকে এড়িয়ে গেছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক বিএনপির একজন নেতা বলেন, বিষয়টি মোটেও ভালো হয়নি। আমাদের মধ্যে অনেকেই আছেন যারা নেতৃত্বের মর্ম বোঝেন না। তারাই এমন মূর্খের মতো কাজ করেছে। এটি নিয়ে দল ও আমাদের স্থানীয় সংগঠন দারুণভাবে সমালোচিত হচ্ছে। বিষয়টি আমাদের সকলের জন্যই অত্যন্ত লজ্জার। কিছু মাথামোটা নেতার জন্য আমাদের সবাইকে বরাবরই সমালোচিত হতে হচ্ছে।


  • 3
    Shares
শর্টলিংকঃ